উচ্চ শব্দে গান শোনায় কিশোরকে গুলি করে হত্যা
Back to Top

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২৮ জানুয়ারি ২০২১ | ১৪ মাঘ ১৪২৭

উচ্চ শব্দে গান শোনায় কিশোরকে গুলি করে হত্যা

পরিবর্তন ডেস্ক ১২:৩৯ অপরাহ্ণ, ডিসেম্বর ০১, ২০২০

উচ্চ শব্দে গান শোনায় কিশোরকে গুলি করে হত্যা
যুক্তরাষ্ট্রের অরেগন অঙ্গরাজ্যে উচ্চ শব্দে গান শোনার কারণে আইদান এলিসন নামের এক কৃষ্ণাঙ্গ কিশোরকে গুলি করে হত্যা করেছে এক ব্যক্তি।

দেশটির সবচেয়ে বড় উৎসব থ্যাংকস গিভিংয়ের সপ্তাহে অ্যাশল্যান্ডের স্টার্টফোর্ড ইনে এ ঘটনা ঘটে বলে সিএনএন-এর প্রতিবেদনে বলা হয়।

অ্যাশল্যান্ডের পুলিশ প্রধান তিঘে ও’মিয়ারা বলেন, স্টার্টফোর্ড ইনের পার্কিং লটে এলিসন উচ্চ শব্দে গান শুনছিল। ওই পার্কিং লটে ৪৭ বছর বয়সী রবার্ট পল কিগান নামের এ ব্যক্তিও ছিলেন।

উচ্চ শব্দে গান বাজানো নিয়ে দুজনের মধ্যে তর্কাতর্কি হয়। একপর্যায়ে ভোর চারটা ২০ মিনিটের দিকে কিগান ক্ষিপ্ত হয়ে তার কাছে থাকা বন্দুক বের করে এলিসনের বুকে একটি গুলি করেন। এতে ঘটনাস্থলে এলিসনের মৃত্যু হয়।

পুলিশ প্রধান তিঘে ও’মিয়ারা বলেন, ২৪ নভেম্বর কিগানকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাঁর বিরুদ্ধে প্রথম ও দ্বিতীয় ডিগ্রি হত্যা, সঙ্গে অবৈধভাবে আগ্নেয়াস্ত্র রাখা এবং বেপরোয়াভাবে অন্যের ক্ষতি করার অভিযোগ আনা হয়েছে। এসব ঘটনার জন্য রবার্ট কিগানই একমাত্র দায়ী ব্যক্তি।

প্রতিবেদনে বলা হয়, ২৭ নভেম্বর আদালতে এই চারটি অভিযোগ নিজেকে নির্দোষ দাবি করেন রবার্ট কিগান। পরে তাঁর জামিন নামঞ্জুর করে আদালত তাঁকে জ্যাকসন কাউন্টি কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেন। এই মামলায় আগামী ২১ ফেব্রুয়ারি কিগানকে আবারও আদালতে হাজির হতে হবে।

রবার্ট কিগানের আইনজীবী তাৎক্ষণিকভাবে কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি।

ও’মিয়ারা আরও বলেন, নিহত এলিসন কৃষ্ণাঙ্গ। গুলি করে তাকে হত্যার প্রতিবাদে সম্মিলিতভাবে শোক প্রকাশ করে বর্ণবাদবিরোধী ডাক দিয়েছে কৃষ্ণাঙ্গ কমিউনিটি। তাদের দাবি যৌক্তিক।

প্রতিবেদনে আরও বলা হয়, সম্প্রতি ভয়াবহ দাবানলে ঘরবাড়ি হারিয়ে স্টার্টফোর্ড ইনের হোটেলে থাকতের রবার্ট কিগান ও তার পরিবার।

ওএস/এইচআর

 

আরও পড়ুন

আরও