আজ গিটারের জাদুকর আইয়ুব বাচ্চুর জন্মদিন
Back to Top

ঢাকা, শুক্রবার, ২৭ নভেম্বর ২০২০ | ১৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৭

আজ গিটারের জাদুকর আইয়ুব বাচ্চুর জন্মদিন

পরিবর্তন ডেস্ক ৩:২৮ অপরাহ্ণ, আগস্ট ১৬, ২০২০

আজ গিটারের জাদুকর আইয়ুব বাচ্চুর জন্মদিন
সেই আশির দশক থেকে যার গানে, সুরে ও কথায় তিনি মন জয় করেছেন হাজারো বাঙালির হৃদয়। সংগীতের আঙিনায় তিনি একাধারে গীতিকার, সুরকার, সংগীত পরিচালক এবং গায়ক হিসেবে পেয়েছেন বিপুল জনপ্রিয়তা। মূলত রক ঘরানার কণ্ঠের অধিকারী হলেও আধুনিক গান, ক্লাসিকাল সংগীত এবং লোকগীতি দিয়েও শ্রোতাদের মুগ্ধ করেছেন তিনি। জনপ্রিয়তায় তিনি গিটারিস্ট নামও ছুঁয়েছেন আন্তর্জাতিক আঙিনা। তাই তাকে গিটারের জাদুকরও বলা হয়। সেই গিটারের জাদুকর আইয়ুব বাচ্চুর জন্মদিন আজ।

প্রয়াত এই কিংবদন্তির ৫৮তম জন্মদিন আজ। মৃত্যুর পর এটা তার দ্বিতীয় জন্মদিন। তিনি না থাকলেও রয়েছে তার রেখে যাওয়া হাজারো ভক্ত অনুরাগীরা। যারা স্মরণ করছেন জন্মদিনের শুভেচ্ছায়। এখনো তিনি শ্রোতাদের অন্তরে ফেলে যাওয়া রুপালি গিটারের কাব্যময়তার প্রতীক হয়ে সবার মাঝেই রয়েছেন।

কিংবদন্তী এই শিল্পী ১৯৬২সালের ১৬ আগস্ট চট্টগ্রামে জন্মগ্রহণ করেন। বাবা ইশহাক চৌধুরী এবং মা নুরজাহান বেগম। বাণিজ্যনগরী চট্টগ্রামের ছেলে বাচ্চু পপগুরু আজম খানকে অনুসরন করে হাল ধরেন বাংলা রক মিউজিকের। রক সংগীতকে বাংলার গণমানুষের গানে পরিণত করায় ভক্তদের কাছ থেকে পেয়েছিলেন ‘বস’ উপাধি।

শুরু হয়েছিলো কলেজে জীবনে বন্ধুদের নিয়ে গোল্ডেন বয়েজ নামে একটা ব্যান্ডদল গড়ে তোলার ভিতর দিয়ে। সেটাই ছিলো আনুষ্ঠানিকভাবে তার প্রথম যাত্রা। পরে দলটির নাম পাল্টে রাখা হয় আগলি বয়েজ। বিয়েবাড়ি, জন্মদিন আর ছোটখাটো নানা অনুষ্ঠানে তাদের এই ব্যান্ডদল গান করতো। আইয়ুব বাচ্চুর বন্ধুরা যে যার মতো একেক দিকে ছড়িয়ে পড়লেও আইয়ুব বাচ্চু ব্যান্ডদল ফিলিংস’র সঙ্গে যুক্ত হয়ে যান।

তিনি ১৯৮০ সালে যোগ দেন তৎকালীন তুমুল জনপ্রিয় ব্যান্ড সোলস-এ। এই ব্যান্ডের লিডগিটারিস্ট হিসেবে আলো ছড়িয়েছেন টানা ১০ বছর। ১৯৯১ সালে সোলস ছেড়ে দিয়ে ওই বছরের ৫ এপ্রিল গড়ে তোলেন নতুন ব্যান্ড এলআরবি। শুরু হয় স্বপ্নের যাত্রা।

'হারানো বিকেলের গল্প' প্রথম কন্ঠ দেওয়া গান ছিলো তার। প্রথম প্রকাশিত একক অ্যালবাম ছিলো 'রক্তগোলাপ'। তার সফলতার শুরু দ্বিতীয় অ্যালবাম ‘ময়না’র মধ্য দিয়ে। তিনি বেশ কিছু বাংলা ছবিতে প্লেব্যাকও করেছেন। ‘আম্মাজান’, ‘একঝাঁক পাখি উড়ে আকাশে’, ‘স্বাগরিকা’ ইত্যাদি গানগুলো তাকে সারাদেশের শ্রোতাদের কাছে জনপ্রিয় করে তুলেছিলো।

ব্যান্ডে ফেরারি মন, চলো বদলে যাই, এখন অনেক রাত, হকার, আমি বারো মাস তোমায় ভালোবাসি, কষ্ট পেতে ভালোবাসি এবং রূপালী গিটারসহ অসংখ্য শ্রোতাপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন আইয়ুব বাচ্চু।

২০১৮ সালের ১৮ অক্টোবর কোটি ভক্তকে কাঁদিয়ে না ফেরার দেশে পাড়ি জমান সুরের জাদুকর। যে মৃত্যুর মধ্য দিয়ে এদেশের ব্যান্ড সংগীতের নন্দিত এক অধ্যায়ের পরিসমাপ্তি হয়েছে।

এসকে

 

আরও পড়ুন

আরও