ক্ষীর পাটিসাপটা
Back to Top

ঢাকা, মঙ্গলবার, ৯ আগস্ট ২০২২ | ২৪ শ্রাবণ ১৪২৯

>

ক্ষীর পাটিসাপটা

পরিবর্তন ডেস্ক ১১:১৭ পূর্বাহ্ণ, জানুয়ারি ১১, ২০২২

ক্ষীর পাটিসাপটা
শীতকাল আসলেই পিঠা খাওয়ার ধুম পড়ে যায়। আবহমান বাংলার নিজস্ব ঐতিহ্যের সাথে পিঠা-পুলির সম্পর্ক যুগ যুগ ধরে। এলাকাভেদে পিঠার তারতম্য থাকায় আমাদের দেশের গ্রামগুলোতে পিঠাভিত্তিক স্বতন্ত্র সংস্কৃতিও গড়ে উঠেছে! গ্রামাঞ্চলে তো বটেই, শহরগুলোতেও পিঠার জনপ্রিয়তা দিন দিন বেড়েই চলেছে। পাটিসাপটা পিঠা তো আমাদের সবারই পছন্দের। খুব সহজে ঝটপট করে কীভাবে মজাদার ক্ষীর পাটিসাপটা পিঠা বানিয়ে নেওয়া যায়, সেই রেসিপিটি আজ শেয়ার করবো।

ক্ষীর পাটিসাপটা কীভাবে বানাবেন?
মোটামুটি আমরা সবাই কিন্তু জানি যে এই পিঠা কীভাবে বানাতে হয়। যারা নতুন রাঁধুনি এবং সহজ উপায়ে ক্ষীরসা দেওয়া পাটিসাপটা বানাতে চাচ্ছেন, তাদের জন্য এই রেসিপিটি খুবই হেল্পফুল হবে। বিভিন্নভাবে পাটিসাপটা পিঠা বানানো যায়। অনেকে খেজুর গুড় দিয়ে বানিয়ে থাকেন, অনেকে নারকেল দেন, কেউ আবার গুঁড়ো দুধ-সুজি দিয়ে পুর বানিয়ে নেন। পাটিসাপটার মেইন টেস্টটা আসে ভেতরের পুর বা ক্ষীর থেকেই। তাই ক্ষীর সুস্বাদু হলে, পিঠার টেস্ট একদম পারফেক্ট হবে। চলুন কথা না বাড়িয়ে উপকরণগুলো আগে দেখে নেই।

উপকরণ:
ক্ষীর বানাতে লাগবে-
তরল দুধ- ৫০০ মি.লি, গুঁড়া দুধ- ২ টেবিল চামচ, চিনি- ১/২ কাপ, এলাচ গুঁড়া- সামান্য, সুজি- ২ চা চামচ।

পিঠা বানাতে লাগবে-
চালের গুঁড়া- ১ কাপ, ময়দা- ১/২ কাপ, গুঁড়ো দুধ- ২ চা চামচ, চিনি- ৩ টেবিল চামচ, লবণ- ১ চিমটি, 

প্রণালি:
প্রথমে তরল দুধ জ্বাল দিয়ে ঘন করে নিন। এবার দুধে চিনি ও সুজি মিশিয়ে নাড়তে থাকুন।

এতে গুঁড়ো দুধ অ্যাড করলে খুব সুন্দর ক্রিমি টেক্সচার আসে, আর স্বাদও খুব ভালো হয়। গুঁড়ো দুধ মিশিয়ে নিয়ে ভালোভাবে নাড়ুন যাতে দলা পাকিয়ে না যায়।

ঘন হয়ে আসলে ক্ষীরে সামান্য এলাচ গুঁড়ো ছড়িয়ে দিন। ব্যস, পাটিসাপটার পুর রেডি।

এবার একটি বড় বোল নিয়ে তাতে ময়দা, চালের গুঁড়ো, মিল্ক পাউডার, চিনি, সামান্য লবণ একসাথে মিক্স করে নিন।

পরিমাণমতো পানি যোগ করে ব্যাটার বানাতে হবে। গোলা খুব বেশি ঘন হবে না, আবার একদম পাতলাও হবে না।

তারপর ননস্টিকি সসপ্যান বা তাওয়া গরম করে ঘি ব্রাশ করে দিন। গোল চামচের সাহায্যে পিঠার ব্যাটার দিয়ে দিন প্যানে।

প্যানের হাতল ধরে ঘুরিয়ে চারদিকে ছড়িয়ে দিন, গোল রুটির মতো শেইপ হবে।

এবার এক কোণায় লম্বা করে ক্ষীরসা দিয়ে সাবধানে পিঠা ভাজ করে নিন। চুলার আঁচ একদমই কম রাখবেন।

পিঠা উল্টেপাল্টে ভেজে নিয়ে তুলে ফেলুন। এভাবে একটা একটা করে পিঠা রেডি করে নিন।

তাহলে দেখলেন তো, খুব কম সময়ে অল্প উপকরণ দিয়ে দারুণ স্বাদের ক্ষীর পাটিসাপটা বানিয়ে নেওয়া যায়! চিনির পরিবর্তে গুড় দিয়েও করতে পারেন। শীতের আমেজে উপভোগ করুন মজাদার পিঠা। আজ এই পর্যন্তই, আবারও চলে আসবো নতুন কোনো রেসিপি নিয়ে। ভালো থাকবেন।

ইসি
 

আরও পড়ুন

আরও
               
         
close