করোনা আক্রান্ত শুনেই দেয়াল টপকে পালালো যুবক
Back to Top

ঢাকা, সোমবার, ১৩ জুলাই ২০২০ | ২৯ আষাঢ় ১৪২৭

করোনা আক্রান্ত শুনেই দেয়াল টপকে পালালো যুবক

বিরামপুর (দিনাজপুর) প্রতিনিধি ৮:০৯ অপরাহ্ণ, মে ৩০, ২০২০

করোনা আক্রান্ত শুনেই দেয়াল টপকে পালালো যুবক
দিনাজপুরের বিরামপুরে করোনাভাইরাস শনাক্তের খবর শুনেই আইসোলেশন থেকে পালিয়েছেন মো. রুহুল আমিন (১৮) নামের এক যুবক। ওই যুবক গাজীপুর এলাকায় একটি পোশাক কারখানায় কর্মরত ছিলেন।

এই ঘটনায় উপজেলা বিভিন্ন স্থানে চেকপোস্ট বসিয়ে স্বাস্থ্যবিভাগ, থানা পুলিশ ও উপজেলা প্রশাসন সারা রাত অনেক খোঁজাখুজির পরও তাকে উদ্ধার করতে পারেনি।

বিরামপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা অফিসার ডা. মো. সোলায়মান হোসেন মেহেদী বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

মো. রুহুল আমিন (১৮) উপজেলার একইর গ্রামের মো. রবিউল ইসলামের ছেলে। শুক্রবার রাতে একইর উচ্চ বিদ্যালয় থেকে উপজেলা স্বাস্থ্যবিভাগের লোকজন আনতে গেলে সে পালিয়ে যায়।

সোলায়মান হোসেন মেহেদী বলেন,‘শুক্রবার সন্ধায় জেলা সিভিল সার্জন কার্যলয় থেকে বিরামপুর একই গ্রামের মো.রুহুল আমিন (১৮) নামের এক যুবকসহ উপজেলায় মোট ৩ জনের শরীরে করোনা পজেটিভ রিপোর্ট আসে।

এরপর উপজেলা প্রশাসন, পুলিশ ও স্বাস্থ্যবিভাগের লোকজন সেখানে উপস্থিত হয়ে ওই যুবককে বিরামপুর উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সে চিকিৎসা সেবার জন্য নিতে যায়। এর পর ওই যুবকের শরীরে করোনাপজেটিভ এমন খবর শুনে টয়লেট করার কথা বলে দেয়াল টপকে পালিয়ে যায়।

তিনি বলেন,‘করোনা আক্রান্ত ওই যুবক গাজীপুর একটি পোশাক কারখানায় কাজ করত। বেশ কয়েক দিন আগে সে এলাকায় আসলে স্থানীয় গ্রামবাসী তাকে পাশ্ববর্তী একইর হাইস্কুলের একটি কক্ষে আইসোলেশনে রাখে। স্বাস্থ্যবিভাগ তার শরীরের নমুনা সংগ্রহ করে দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠালে শুক্রবার সন্ধায় তার নমুনা পজেটিভ আসে’।

বিরামপুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) মো.মনিরুজ্জামান মনির বলেন, ‘করোনাভাইরাস নিয়ে পালানো ওই যুবককে ধরতে উপজেলার বিভিন্নস্থানে সারারাত অভিযান চালানো হয়েছে। এখন পর্যন্ত বিভিন্নস্থানে চেকপোস্ট বসিয়ে তল্লাশি করা হচ্ছে’।

বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. তৌহিদুর রহমান বলেন, উপজেলায় করোনায় আক্রান্তদের সবাইকে বিরামপুর মুক্তিযোদ্ধা কমপ্লেক্সে রেখে চিকিৎসা সেবা দেওয়া হচ্ছে। ওই যুবককেও চিকিৎসা সেবা দেওয়ার জন্য উপজেলা স্বাস্থ্যবিভাগ, পুলিশ ও উপজেলা প্রশাসন একইর হাইস্কুল থেকে আনতে যায়। এসময় ওই যুবক টয়লেট করার কথা বলে প্রাচীর টপকে পালিয়ে যায়। তাকে ধরতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

প্রসঙ্গত, উপজেলায় করোনা রোগীর সংখ্যা সর্বমোট ২১ জন। তার মধ্যে ৩ জন সুস্থ হয়ে বাড়িতে ফিরে গেছেন’।

এমআর/পিএসএস

 

: আরও পড়ুন

আরও