চামড়ার দরকষাকষি
Back to Top

ঢাকা, শুক্রবার, ২৩ এপ্রিল ২০২১ | ১০ বৈশাখ ১৪২৮



চামড়ার দরকষাকষি

পরিবর্তন ডেস্ক ১০:১০ পূর্বাহ্ণ, জুন ০৬, ২০২০

চামড়ার দরকষাকষি
চামড়ার দরকষাকষি

নিয়াজ মোর্শেদ

শিরায় শিরায় রক্তের
ধারাতো লালই লাগে
হৃদপিন্ডটাও তো বুকের বাম দিকেই আছে
ফুসফুস তো দু দিকে দুটাই
যকৃত তো সেই একটাই
তবুও কেন এত দরাদরি
কেন এত ভেদাভেদ
চামড়ার কি রং তাতে
এতো যায় আসে কেন সবার।

আমি কালো চামড়া তাতে কি
আমার ঢাকা শরীরের মাংসতে
সাদা চামড়ার নিচের মতো কোষবিভাজন হয় না।

তবে কেন এত ঘৃনা আমায়?

তুমি সাদা চামড়া ঘেরা
তোমার হৃদয় স্পন্দনের সুরের সাথে
আমার কালো চামড়ার নিচের স্পন্দনের সুর কি ভিন্ন?

কালো চামড়ায় গড়া দেহের কি
মনে কষ্ট থাকতে নেই,
অনুভূতি শূন্যই থাকাই কি নিয়তি
প্রতিবাদের ভাষা কি চিরতরে বন্ধ।

সব মানুষের মতই তো
কালো চামড়ায় গড়া মানুষের
একটি মুখ, দুটি হাত, দুটি পা আছে।

তবে কেন কালো চামড়ার নিচে প্রাণের আবহ চলে বলে
যুগের পর যুগ নিষ্পষিত হতে হবে

কথা বলার শক্তি কেড়ে নেওয়া হবে
কালো চামড়া দেখলেই
নাক কুচকে
মুখ ফিরিয়ে নিতে হবে।

বিনা অপরাধে কালো চামড়ার দেহের উপর লাফিয়ে লাফিয়ে
পিপাসায় কাতর দেহের
নিশ্বাস প্রশ্বাস কেড়ে নিয়ে
প্রানহীন নিথর দেহ মাটিতে
ফেলে রাখা হবে

কালো বলে আর কত অপদস্ত করা হবে
কোনই কি দাম নেই কালো চামড়ার

সেই শতাব্দীর পর শতব্দী
শুধু মার খেয়েই যাচ্ছি
কখনো দাস বলে ছি ছি করে দূরে ঠেলে
কখনো সাধারণ সভ্য সমাজে
বর্ণবৈষম্যের জোরে
মুখ চাপড়ে ধরে

কালো চামড়ার এ দাম কষাকষি আর মানছে না পুড়ে যাওয়া ক্ষত হৃদয়
কালো চামড়াকে মেকাপের আড়ালে ঢাকার
সময় ফুরিয়ে গেছে অনেক আগেই

কালো চামড়ার মানুষ
অন্য সব চামড়ার মানুষের মতই আমারও স্বাধীনতা আছে
মত প্রকাশেরও অধিকার আছে

আমিও রক্তে মাংসে গড়া মানুষ
আমাকেও আমার ইচ্ছা অনুভূতি আবেগ
প্রকাশ করতে দিতে হবে

আমকেও ভালোবাসার হাত বাড়িয়ে দাও
আমারও কোমাল হৃদয় আছে
রোদে পুড়ে ঘামে জড়জড় হয়ে আমিও পৃথিবীকে গড়তে তোমাদের মতই ভালোবাসার হাত বাড়িয়েছি সেই কবেই
আমিও ভালোবাসতে জানি
তাই আমি গর্বিত কালো চামড়াধারী।

 

আরও পড়ুন

আরও