পুজার আগে নতুন বাড়ি
Back to Top

ঢাকা, বুধবার, ১ ডিসেম্বর ২০২১ | ১৭ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

পুজার আগে নতুন বাড়ি

পরিবর্তন ডেস্ক ১২:৫৯ অপরাহ্ণ, সেপ্টেম্বর ২৩, ২০২১

পুজার আগে নতুন বাড়ি
নতুন ঘর। নতুন ঠিকানা। মাথা গোঁজার ঠাঁই। শান্তির ঠিকানাকে সাজানোর পরিকল্পনা থাকে সকলেরই। তবে ঘরকে মনের মতো করে সাজাতে গিয়েও নানা ভুল হয়ে যায়। আর সেই সামান্য ভুলে আপনার সাধের ঘর হয়ে উঠতে পারে অগোছালো। ঘর সাজাতে গেলে কী ভুল করা উচিত নয়, তা বুঝতে পারছেন না তাই তো? আপনার জন্য রইল টিপস।

আসবাবপত্রের কথা না ভেবেই বাড়ির রং আগে করিয়ে নেন অনেকেই। এই পরিকল্পনা বদল করুন। আসবাবপত্রের কথা মাথায় রেখেই রং বাছুন। নইলে আপনার বাড়ি শুধুমাত্র রংয়ের জন্যই সকলের পছন্দের তালিকা থেকে বাদ পড়তে পারে।

অনেকেই বসার ঘরে সোফা, টি টেবিলের কাছে পাপোষ রাখেন। ঘর সাজানোর সময় পাপোষের মাপের দিকে খেয়াল রাখুন। আগে আসবাবপত্র সাজিয়ে নিন। তারপর পাপোষ কিনুন। ছোট পাপোষ কিনবেন না। পরিবর্তে বড় মাপের কিনুন।

ঘর সাজানোর ক্ষেত্রে পর্দা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ। তাই পর্দার কেনার আগে প্রতিটি জানলা এবং দরজার মাপ খেয়াল রাখুন। কারণ, দরজা-জানলার থেকে মাপে বড় পর্দা মোটেও তা ঘরের শোভা বাড়ায় না। ঘরের রংয়ের সঙ্গে তা মানানসই হচ্ছে কিনা, সে বিষয়টিতে নজর দিন।

শোওয়ার ঘরে বিছানার উপর বালিশ রাখা থাকবেই। তবে ক’টি বালিশ বিছানার উপর রাখবেন, তার উপর ঘরের সৌন্দর্য অনেকটাই নির্ভরশীল। বিছানার উপর বেশি সংখ্যক বালিশ রাখবেন না। বড় বালিশের পরিবর্তে ছোট বালিশ রাখতে পারেন।

আলো খুব উঁচুতে ঝোলাবেন না। তবে তা কারও নজরে পড়বে না। পরিবর্তে আলো চোখের সামনে ঝুলিয়ে দিন। এছাড়া, একই ঘরে একসঙ্গে নানা রকমের আলো লাগাবেন না। পরিবর্তে এক বা দু’রকমের আলো লাগান।

এক একটি ঘর এক এক রকমভাবে সাজাতে পছন্দ করেন অনেকে। সেক্ষেত্রে দেওয়াল কিংবা সিলিংয়ে থিমের কারিকুরি থাকে। তবে গৃহসজ্জা বিশেষজ্ঞদের মতে, কোনো স্থায়ী থিম করবেন না। কারণ, ঘরের একঘেয়ে থিম আপনাকে কখনো কখনো বিরক্ত করে তুলতে পারে। সেই সময় ঘরের সাজসজ্জা পুরোপুরি বদল করা কঠিন হবে। এই টিপসগুলো মেনে ঘর সাজান। তাতেই দেখবেন আপনার সুখী গৃহকোণ হয়ে উঠবে আরও সুন্দর।

ইসি
 

আরও পড়ুন

আরও