চাঁদাবাজি করতে গিয়ে ঢাবির দুই ছাত্র ধরা, কারাগারে
Back to Top

ঢাকা, বৃহস্পতিবার, ২ এপ্রিল ২০২০ | ১৮ চৈত্র ১৪২৬

চাঁদাবাজি করতে গিয়ে ঢাবির দুই ছাত্র ধরা, কারাগারে

ঢাবি প্রতিনিধি ৮:০৩ অপরাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২২, ২০২০

চাঁদাবাজি করতে গিয়ে ঢাবির দুই ছাত্র ধরা, কারাগারে

চাঁদাবাজির অভিযোগে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের (ঢাবি) দুই ছাত্রকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

শনিবার ভোর সাড়ে ৪টায় হাইকোর্ট মোড়ের পানির পাম্পের সামনে থেকে তাদেরকে আটক করে শাহবাগ থানা পুলিশ।

পরে পুলিশের আবেদনের পরিপ্রেক্ষিতে ঢাকার চিফ মেট্রোপলিটন ম্যাজিস্ট্রেট (সিএমএম) আদালত তাদেরকে কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

গ্রেফতার দুই আসামি হলেন— ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষা ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের তৃতীয় বর্ষের শিক্ষার্থী মো. আল আমিন ও আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগের একই বর্ষের জুবায়ের আহমেদ শান্ত। তারা বিশ্ববিদ্যালয়ের মুক্তিযোদ্ধা জিয়াউর রহমান হলের আবাসিক ছাত্র।

শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসান বলেন, মামলার এজাহারে বাদীপক্ষ অভিযোগ করেছেন যে বালুবাহী একটি ট্রাক শুক্রবার দিবাগত রাতে হাইকোর্ট মাজার এলাকায় আসার পর চাকা ফেটে যায়। তখন আসামি আল আমিন ও জুবায়ের আহমেদ ট্রাকের চালকের কাছে চাঁদা দাবি করেন। টাকা না দেওয়ায় আসামিরা মারধরও করেন। একপর্যায়ে আসামিরা ভুক্তভোগীদের কাছে থাকা মোবাইল ছিনিয়ে নেন। মোবাইলে থাকা রকেট থেকে ১৯৫০ টাকা ট্রান্সফার করে নেন। টহল পুলিশ ঘটনাস্থল থেকে আসামিদের আটক করে। 

এ ঘটনায় ট্রাকের তত্ত্বাবধায়ক সোহেল রানা বাদী হয়ে দুজনকে আসামি করে শাহবাগ থানায় মামলা করেন। পরে গ্রেফতার দুই আসামিকে আজ ঢাকার সিএমএম আদালতে হাজির করা হয়। আদালত তাদের কারাগারে পাঠানোর আদেশ দেন।

এ বিষয়ে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রক্টর গোলাম রব্বানী বলেন, তারা অভিযোগটির বিষয়ে জানতে পেরেছেন। শাহবাগ থানাকে তদন্ত করে ব্যবস্থা নিতে বলা হয়েছে। দুই ছাত্রের অপরাধ প্রমাণিত হলে বিশ্ববিদ্যালয় কর্তৃপক্ষ নিয়ম অনুযায়ী ব্যবস্থা নেবে।

ওএস/এসবি

 

শিক্ষাঙ্গন: আরও পড়ুন

আরও