মাথায় করে জুভেন্টাসকে তিন ধাপ উপরে তুললেন রোনালদো
Back to Top

ঢাকা, সোমবার, ১ মার্চ ২০২১ | ১৭ ফাল্গুন ১৪২৭

মাথায় করে জুভেন্টাসকে তিন ধাপ উপরে তুললেন রোনালদো

পরিবর্তন ডেস্ক ১০:৩২ পূর্বাহ্ণ, ফেব্রুয়ারি ২৩, ২০২১

মাথায় করে জুভেন্টাসকে তিন ধাপ উপরে তুললেন রোনালদো
এই মুহূর্তে ক্রিস্তিয়ানো রোনালদোর পা-এর চেয়ে মাথাই যেন বেশি সচল। জুভেন্টাসের পর্তুগিজ তারকা একের পর এক দর্শনীয় গোল করছেন হেড করে। গতকাল রাতে তো মাথা দিয়েই করলেন জোড়া গোল। হ্যাঁ, গতকাল রাতে জোড়া গোল করেছেন রোনালদো। দুটি গোলই তিনি করেছেন হেড করে। তার জোড়া গোলের সঙ্গে ওয়েস্টন ম্যাককেনির গোল মিলিয়ে ক্রোটনের বিপক্ষে জুভেন্টাস পেয়েছে ৩-০ গোলের অনায়াস জয়।

নিজেদের ঘরের মাঠের একতরফা এই জয়ে ইতালিয়ান সিরি আ’র পয়েন্ট তালিকায় জুভেন্টাস এগিয়েছে তিনধাপ। ৬ নম্বর থেকে এক লাফে উঠে এসেছে ৩ নম্বরে। তাদের উপরে এখন শুধুই দুই মিলান। ইন্টার মিলান ও এসি মিলান। ২৩ ম্যাচে ৫৩ পয়েন্ট নিয়ে শীর্ষে ইন্টার মিলান। সমান ম্যাচে দুই নম্বরে থাকা এসি মিলানের পয়েন্ট ৪৯। তাদের চেয়ে এক ম্যাচ কম, মানে ২২ ম্যাচ খেলে জুভেন্টাসের পয়েন্ট হলো ৪৫। পয়েন্ট তালিকার এই চিত্র স্পষ্ট করেই বলছে, কালকের জয়ে লিগ শিরোপা দৌড়ে ভালোভাবেই ফিরে এসেছে জুভেন্টাস।

কিন্তু তাতেও কি স্বস্তি পাচ্ছে তুরিনের ওল্ড লেডিরা? মোটেই নয়। কারণ, ইতালিয়ান সিরি আ’র শিরোপাটা নিজেদের এক সম্পত্তি বানিয়ে ফেলেছে জুভেন্টাস। শিরোপা জিতেছে সর্বশেষ ৯ মৌসুমেই। জুভদের এই সম্পত্তি এবার কেড়ে নেওয়ার হুংকার ছুড়ছে মিলান শহরের দুই প্রতিবেশী। মিছে হুংকার নয়, এই মুহূর্তে অনেকটা এগিয়েও তারা। বিশেষ করে ইন্টার মিলান এখনো ৮ পয়েন্টে এগিয়ে। তবে জুভদের হাতে একটি ম্যাচ বেশি আছে।

এই অবস্থা থেকে নিজেদের সম্পত্তি (লিগ শিরোপা) নিজেদের দখলেই রাখতে হলে সবচেয়ে বড় ভূমিকাটা রাখতে হবে রোনালদোকেই। ৫ বারের ব্যালন ডি’অর জয়ী সেই মন-প্রান উজাড় করে সেই চেষ্টা করছেনও। বলতে গেলে দলকেএকাই টেনে নিয়ে যাচ্ছেন। কোনোভাবে কোনো ম্যাচে তিনি গোল করতে না পারলেই হার বা ড্র হতাশায় পুড়তে হচ্ছে জুভেন্টাসকে। আগের ম্যাচটিতেই যেমন রোনালদো গোল পাননি। তার দলও নাপোলির কাছে ম্যাচটা হেরে যায় ১-০ গোলে।

তবে কাল জোড়া গোল করে দলকে আবার জয়ের ধারায় ফিরিয়েছেন সাবেক রিয়াল মাদ্রিদ তারকা। দলের শিরোপা জয়ের আশায়ও লাগিয়েছেন রঙ। নিজেদের ঘরের মাঠে জুভেন্টাস পুঁচকে ক্রোটনের বিপক্ষে শুরুটা করেছিল দুর্দান্ত। কিন্তু গোল আদায় করে জয়ের পথ খুলতে পারছিল না। অবশেষে ৩৮ মিনিটে রোনালদোর মাথা খুলে দেয় সেই পথ। অ্যালেক্স সান্দ্রোর ক্রস থেকে দুর্দান্ত এক হেডে জুভদের এগিয়ে দেন ৩৬-এ পা দেওয়া রোনালদো।

এই গোলের রেশ না কাটতেই আবারও জুভেন্টাসকে গোল-আনন্দে ভাসান পর্তুগিজ সুপারস্টার। প্রথমার্ধের ইনজুরি সময়ে করা এই গোলটিও তিনি করেছেন মাথার ব্যবহার করে। ফলে ২-০ গোলে এগিয়ে থাকার স্বস্তি নিয়েই বিরতিতে যায় জুভেন্টাস। প্রথমার্ধেই দুই গোল করে বসায় রোনালদোর সামনে সুযোগ ছিল হ্যাটট্রিক করার। কিন্তু শেষ পর্যন্ত খেলেও হ্যাটট্রিকের স্বাদ পাননি। তবে তার দল ঠিকই পেয়েছে তৃতীয় গোল। ৬৬ মিনিটে যে গোলটি করেছেন ওয়েস্টন ম্যাককেনি।

হ্যাটট্রিক হয়নি ঠিক। তবে জোড়া গোলই রোনালদোকে আবার নিয়ে গেছে সিরি আ’র সর্বোচ্চ গোলদাতার আসনে। ইন্টারমিলানের রোমেলু লুকাকুকে টপকে তিনিই এখন লিগের সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকার শীর্ষে। কালকের দুই গোল নিয়ে রোনালদোর গোল হলো ১৭টি। ১৬ গোল করা লুকাকু তাই নেমে গেছেন দুইয়ে।

কেআর

 

আরও পড়ুন

আরও