প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি সমাপনী এবার হচ্ছে না
Back to Top

ঢাকা, রবিবার, ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২০ | ১২ আশ্বিন ১৪২৭

প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি সমাপনী এবার হচ্ছে না

পরিবর্তন ডেস্ক ৪:৫১ অপরাহ্ণ, আগস্ট ২৫, ২০২০

প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি সমাপনী এবার হচ্ছে না
করোনা সংক্রমণের কারণে এবার কেন্দ্রীয়ভাবে প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপনী (পিইসি) পরীক্ষা হবে না বলে জানিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। সমাপনীর বদলে স্কুলে বার্ষিক পরীক্ষা নেয়া হবে।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার অনুমোদনের পর মঙ্গলবার বিকেলে সচিবালয়ে ব্রিফিংয়ে এ তথ্য জানান প্রাথমিক ও গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী মো. জাকির হোসেন।

এসময় প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব মো. আকরাম-আল-হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

করোনার কারণে আগামী নভেম্বর থেকে অনুষ্ঠেয় প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা নেয়ার জন্য গত ১৯ আগস্ট প্রধানমন্ত্রীর কাছে প্রস্তাব করে সার-সংক্ষেপ পাঠানো হয়।

তাৎক্ষণিক ব্রিফিংয়ে প্রতিমন্ত্রী জাকির হোসেন বলেন, করোনা সংক্রমণে সার্বিক পরস্থিতি বিবেচনা করে এবারের প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী ও ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা গ্রহণ না করার বিষয়টি প্রধানমন্ত্রী সম্মতি জ্ঞাপন করেছেন।

অতএব, আমরা পিইসি পরীক্ষাটা নিচ্ছি না, এ বছর স্কুলে বার্ষিক পরীক্ষাগুলো নেব।

এবার করোনাভাইরাসের কারণে এই পরীক্ষা না নেয়ার সিদ্ধান্ত চূড়ান্ত হওয়ায় পঞ্চম শ্রেণির শিক্ষার্থীদের বৃত্তি দেয়া হবে না বলে জানান গণশিক্ষা প্রতিমন্ত্রী।

২০০৯ সাল থেকে প্রাথমিক সমাপনী পরীক্ষা নিয়ে আসছে সরকার, অন্য বিদ্যালয়ের পরীক্ষাকেন্দ্রে পরীক্ষায় বসতে হয় খুদে শিক্ষার্থীদের।
প্রতিমন্ত্রী জানান, এবার পঞ্চমের দুই সমাপনী পরীক্ষার ২৯ লাখ শিক্ষার্থীর অংশ নেয়ার কথা ছিল।

এমসিকিউ পদ্ধতিতে বার্ষিক পরীক্ষা নেয়া হবে কি না- প্রশ্নে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিব আকরাম-আল-হোসেন বলেন, এটা স্কুল কর্তৃপক্ষ বলতে পারবে, আমরা তাদের দায়িত্ব দেব। শিক্ষকরা যেভাবে প্রশ্ন করবেন, সেভাবেই হবে, স্ব স্ব বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক এ সিদ্ধান্ত দেবেন।

তিনি বলেন, জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা একাডেমিকে (নেপ) তিনটি বিকল্প পাঠ পরিকল্পনা করতে বলেছিলাম। সেপ্টেম্বর, অক্টোবর এবং নভেম্বর মাসের জন্য তিনটি পরিকল্পনা করতে বলা হয়েছিল। যেহেতু সেপ্টেম্বরে এখনও শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার মতো পরিবেশ তৈরি হয়নি, তাই সেপ্টেম্বরকে বিকল্প হিসেবে ধরছি না। অক্টোবর এবং নভেম্বরকে সামনে রেখে যে পাঠ পরিকল্পনা করেছি, সেটাকে সামনে রেখে, সেটার ভিত্তিতে প্রত্যেকটা স্কুল ওয়ান থেকে ফাইভ পর্যন্ত প্রশ্নপত্র করে পরীক্ষা নেবে।

গত ৮ মার্চ দেশে প্রথম করোনা রোগী শনাক্ত হওয়ার পর ১৭ মার্চ থেকে দেশের সব শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ রাখা হয়েছে। কয়েক দফা বাড়িয়ে আগামী ৩১ আগস্ট পর্যন্ত শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানে ছুটি ঘোষণা করেছে সরকার।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকায় পাঠদানের ধারাবাহিকতা রাখতে সংসদ টিভি এবং বেতারে ক্লাস পরিচালনা ছাড়াও অনলাইনে পাঠদানের কার্যক্রম গ্রহণ করা হয়েছে।

ওএস/এইচআর

 

আরও পড়ুন

আরও